April 14, 2021, 1:07 am
Headlines:
রাশিয়ান বিশ্ববিদ্যালয় গুলির অনলাইন শিক্ষামূলক প্রদর্শনী ২১ এপ্রিল বাংলাদেশে অনুষ্ঠিত হবে মশার লার্ভার বিরুদ্ধে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করা হবে: ঢাদসিক মেয়র  বাংলা নববর্ষ উপলক্ষে ই-পোস্টার প্রকাশ সারা দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় ২ লাখ ৩৭ হাজার ৩২৯ জনের ভ্যাকসিন গ্রহণ নিরবচ্ছিন্ন পানি সরবরাহে জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদপ্তরকে নির্দেশ স্থানীয় সরকার মন্ত্রীর বিডা’র অনলাইন ওএসএস পোর্টালে যুক্ত হলো আরো ৫ টি নতুন সেবা আগামীকাল থেকে পবিত্র রমজান মাস গণনা শুরু ভুয়া বিশ্ববিদ্যালয় থেকে সম্মানসূচক ডক্টরেট ডিগ্রি নিলেন মমতাজ ১৩ এপ্রিল কোভিড-১৯ সংক্রান্ত সর্বশেষ প্রতিবেদন সরকার সব সময় আপনাদের পাশে রয়েছে : প্রধানমন্ত্রী স্বাস্থ্য সেবা বিভাগের সকল প্রতিষ্ঠান খোলা রাখার নির্দেশ বাংলা নববর্ষে তথ্যমন্ত্রীর শুভেচ্ছা পবিত্র মাহে রমজান উপলক্ষ্যে প্রধানমন্ত্রীর বাণী  পবিত্র মাহে রমজান উপলক্ষ্যে রাষ্ট্রপতির বাণী বাংলা নববর্ষ উপলক্ষ্যে প্রধানমন্ত্রীর বাণী  বাংলা নববর্ষ উপলক্ষ্যে রাষ্ট্রপতির বাণী মৎস্য আহরণ নিষিদ্ধকালে জেলেদের জন্য ৩১ হাজার মেট্রিক টন ভিজিএফ চাল বরাদ্দ করোনা রোধে বিধিনিষেধ চলাকালে জরুরি প্রয়োজনে পুলিশের MOVEMENT PASS কোভিড-১৯ সংক্রমিত রোগীর ঢাকামুখী না হওয়ার পরামর্শ নওগাঁয় তিনটি উপজেলায় সেন্ট্রাল অক্সিজেন প্লান্টের উদ্বোধন করলেন খাদ্যমন্ত্রী

সুনামগঞ্জে পুলিশের হাতে লাঞ্ছিত ডাক্তার

The Bangladesh Beyond
  • Published Time Friday, April 10, 2020,

সুনামগঞ্জের ছাতক উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের এক মেডিকেল অফিসার পুলিশের হাতে লাঞ্ছিত হয়েছেন। এ ঘটনার নিন্দা জানিয়েছে চিকিৎসকদের সংগঠন বিএমএ।

গতকাল বৃহস্পতিবার (৯ এপ্রিল) সন্ধ্যায় শহরের মেডিকেল রোডে পুলিশের হাতে শারীরিকভাবে লাঞ্ছনার শিকার হন ডা. তোফাজ্জল হোসেন সনি।

এ দিকে পুলিশের পক্ষ থেকে ঘটনার জন্য দুঃখ প্রকাশ করা হলেও অভিযুক্ত এসআইয়ের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা গ্রহণ না করায় ডাক্তারদের মাঝে চাপা ক্ষোভ বিরাজ করছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় ছাতক উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে দায়িত্ব পালন শেষে জরুরি কাজে বের হন মেডিকেল অফিসার ডা. তোফাজ্জল হোসেন সনি। এ সময় ছাতক থানার এসআই মান্নানের নেতৃত্বে পুলিশের একটি টহল দল সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিতের লক্ষ্যে সেখানে যান।

যাওয়ার পরপর উপস্থিত লোকদের লাঠিচার্জ শুরু করেন এসআই আবদুল মান্নান। এ সময় ডা. সনিকেও লাঠিপেটা করা হলে তিনি নিজেকে ডাক্তার পরিচয় দেন। পরিচয় পাওয়ার পর তাকে কোনো কিছু না বলে ঘটনাস্থল ত্যাগ করে পুলিশ।

পরবর্তীকালে ডাক্তারদের পক্ষ থেকে বিষয়টি থানার ওসি ও উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে জানানো হয়। সন্ধ্যায় পুলিশ হাসপাতালে গিয়ে দুঃখ প্রকাশ করে।

ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী স্থানীয় ব্যবসায়ী আসাদ জানান, সন্ধ্যায় পুলিশ এসে রাস্তায় যাকে পেয়েছে তাকেই লাঠিপেটা শুরু করে। একপর্যায়ে ডাক্তারের গায়েও হাত তুলেছে তারা।

ছাতক উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মেডিকেল অফিসার ডা. তোফাজ্জল হোসেন সনি এ ঘটনায় পুলিশের পক্ষ থেকে দুঃখ প্রকাশ করার কথা জানিয়েছেন।

সুনামগঞ্জ বিএমএর সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা ডা. আবদুল হাকিম বলেন, ছাতকে পুলিশের হাতে ডাক্তার লাঞ্ছিত হওয়ার ঘটনা শুনেছি। পরবর্তীকালে বিষয়টি মিটমাটও হয়ে গেছে। কিন্তু জড়িত পুলিশ কর্মকর্তার উচিত ছিল ডাক্তার পরিচয় পাওয়ার পর তার কাছে দুঃখ প্রকাশ করা। সেটা না করায় ও তার বিরুদ্ধে বিভাগীয় শাস্তিমূলক ব্যবস্থা না নেয়ায় আমরা মর্মাহত হয়েছি। আমাদের সংগঠনের পক্ষ থেকে এ ঘটনার নিন্দা ও জড়িত ব্যক্তির শাস্তি দাবি করছি।

তিনি আরও বলেন, করোনা পরিস্থিতির মাঝে ডাক্তাররা জীবনের ঝুঁকি সাধারণ মানুষকে সেবা দিয়ে যাচ্ছেন। এ ক্ষেত্রে তাদের নিরাপত্তার বিষয়টি পুলিশকেই সবার আগে নিশ্চিত করতে হবে।

সুনামগঞ্জ বিএমএর সাংগঠনিক সম্পাদক ডা. সৈকত দাস বলেন, করোনার এই সংকটময় সময়ে ডাক্তারদের পরিবহন ও চলাফেরার ক্ষেত্রে কিছু কিছু জায়গায় আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর দ্বারা অসহযোগিতার খবর পাচ্ছি। ছাতকে একজন এসআইয়ের বিরুদ্ধে ডাক্তারকে শারীরিকভাবে লাঞ্ছিত করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। উনি ডাক্তারকে চেনা সত্ত্বেও ইচ্ছাকৃতভাবে রাস্তায় শারীরিকভাবে লাঞ্ছিত করেছেন। তদন্তসাপেক্ষে এই পুলিশ সদস্যের বিচার দাবি করছি।

তবে এমন কোনো ঘটনা সম্পর্কে কিছুই জানেন না বলে জানান ছাতক থানার ওসি মোস্তাফা কামাল।

সুনামগঞ্জের পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মিজানুর রহমান বলেন, ডাক্তারদের সঙ্গে এমনটা হওয়ার কথা না। আমি বিষয়টি খোঁজ-খবর নিয়ে দেখছি।

Social Medias

More News on this Topic
01779911004