March 3, 2021, 1:55 am
Headlines:
মুশতাকের মৃত্যুতে বিদেশিদের বিবৃতিতে শিষ্টাচার লঙ্ঘিত হয়েছে: তথ্যমন্ত্রী অসচ্ছল বীর মুক্তিযোদ্ধাদের জন্য ৩০ হাজার বীর নিবাস করা হবে: মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী ইন্দো-প্যাসিফিক নিরাপত্তা ইস্যুতে যুক্তরাষ্ট্রের সাথে কাজ করতে চায় বাংলাদেশ: পররাষ্ট্র মন্ত্রী রাষ্ট্রপতির নিকট সিএজি’র ২০১৭-১৮ অর্থবছরের অডিট রিপোর্ট পেশ দ্রুত জনবল নিয়োগের নির্দেশ আইসিটি প্রতিমন্ত্রীর টেকসই অর্থনৈতিক উন্নয়নের পূর্বশর্ত পরিবেশবান্ধব শিল্পায়ন: শিল্প প্রতিমন্ত্রী ২৬ মার্চ চালু হচ্ছে ঢাকা-জলপাইগুড়ি যাত্রীবাহী ট্রেন এনইসি সভায় প্রায় ১ লাখ ৯৮ হাজার কোটি টাকার ব্যয় সংবলিত বার্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচির অনুমোদন ADB providing US$ 940 million to Bangladesh to procure the Covid-19 vaccines অভ্যন্তরীণ সম্পদে দেশকে গড়ে তোলা হচ্ছে: প্রধানমন্ত্রী বায়োটেক প্লাজমা প্রযুক্তির যুগে প্রবেশ করল বাংলাদেশ: আইসিটি প্রতিমন্ত্রী Appoint a Special Envoy on Rohingyas: FM to OIC ASGPA Youssef Aldobeay মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের নতুন সচিব মো. সায়েদুল ইসলাম এর যোগদান Friendship towards all, and malice towards none: Bangabandhu’s philosophy on card towards development: FM বাংলাদেশ ও AIIB’র মধ্যে ৩০০ মিলিয়ন মার্কিন ডলারের ঋণচুক্তি স্বাক্ষর সকল দুর্যোগ ও সংগ্রাম মোকাবিলায় পুলিশের রয়েছে অসামান্য অবদান: বস্ত্র ও পাট মন্ত্রী প্রতারণামূলক বিজ্ঞাপন প্রচার না করার আহ্বান জানিয়েছে বিএসটিআই জাতীয় ভোটার দিবসে রাষ্ট্রপতির বাণী ৭ মার্চের ভাষণ ছিলো মুক্তিযুদ্ধের প্রেরণার উৎস: তথ্য প্রতিমন্ত্রী নিরপেক্ষ জাতীয় প্রেসক্লাবকে সংঘর্ষের ঢাল বানানো অপরাধের শামিল: তথ্যমন্ত্রী

অভিবাসীদের অধিকার, কল্যাণ ও মর্যাদা নিশ্চিত করতে প্রয়োজন দৃঢ় রাজনৈতিক সদিচ্ছা: রাষ্ট্রদূত রাবাব ফাতিমা

The Bangladesh Beyond
  • Published Time Wednesday, December 2, 2020,

অভিবাসীদের অধিকার, কল্যাণ ও মর্যাদা নিশ্চিত করতে প্রয়োজন দৃঢ় রাজনৈতিক সদিচ্ছা: রাষ্ট্রদূত রাবাব ফাতিমা

নিউইয়র্ক, ২ ডিসেম্বর :

অভিবাসীগণের অধিকার, কল্যাণ ও মর্যাদা নিশ্চিত করতে দৃঢ় রাজনৈতিক সদিচ্ছার প্রয়োজন। তাদের বিরুদ্ধে ‘ভীতিউদ্রেকী অপপ্রচার’, ঘৃণা, অসহিষ্ণুতা ও বৈষম্য যেভাবে বেড়ে চলেছে তা মোকাবিলায় বৈশ্বিক সংহতি গড়ে তোলা অপরিহার্য।

গতকাল ‘নিরাপদ, নিয়মতান্ত্রিক ও নিয়মিত অভিবাসনের বৈশ্বিক কম্প্যাক্ট’ এর ওপর জাতিসংঘ মহাসচিবের প্রথম দ্বিবার্ষিক রিপোর্ট প্রকাশ উপলক্ষ্যে আয়োজিত উচ্চ পর্যায়ের অনুষ্ঠানে প্রদত্ত প্যানেল বক্তব্যে একথা বলেন জাতিসংঘে নিযুক্ত বাংলাদেশের স্থায়ী প্রতিনিধি রাষ্ট্রদূত রাবাব ফাতিমা।

বৈশ্বিক অভিবাসন কম্প্যাক্ট গ্রহণের ক্ষেত্রে বাংলাদেশের ভূমিকা ও নিবিড় অংশগ্রহণের কথা উল্লেখ করে তিনি এর বাস্তবায়নের ক্ষেত্রেও সে প্রতিশ্রুতির পূনর্ব্যক্ত করেন। স্থায়ী প্রতিনিধি আরো বলেন, সুদৃঢ় এই প্রতিশ্রুতির কারণেই কম্প্যাক্টটি বাস্তবায়নে জাতিসংঘের অভিবাসন সংক্রান্ত নেটওয়ার্ক পরিচালিত ‘চ্যাম্পিয়নস্ ইনিশিয়েটিভ’এ যোগ দিয়েছে বাংলাদেশ।

কোভিড১৯ মহামারিতে চাকুরি হারানো, বেতন কর্তন ও সামাজিক সুরক্ষা অভাবের ফলে অভিবাসীগণ যে সকল ভয়াবহ চ্যালেঞ্জের মধ্যে পড়েছে তাতে আলোকপাত করেন তিনি। চলমান এসকল সংকট মোকাবিলায় মহাসচিব তাঁর রিপোর্টে বাস্তবভিত্তিক যে সুপারিশমালা তুলে ধরেছেন তার প্রশংসা করেন রাষ্ট্রদূত ফাতিমা। করোনা মহামারির শুরুতেই বাংলাদেশের সহনেতৃত্বে আনীত ‘অভিবাসীদের ওপর কোভিড১৯ এর প্রভাব’ শীর্ষক যৌথ ইস্তেহারের বিষয়টি রিপোর্টে উল্লেখ করার জন্য মহাসচিবকে ধন্যবাদ জানান তিনি। উল্লেখ্য ইস্তেহারটি ১০৩টি দেশের সমর্থন লাভ করে।

জাতীয়, আঞ্চলিক ও বৈশ্বিক অংশীজনদের দক্ষতা ও অভিজ্ঞতা থেকে সুবিধা পাওয়ার লক্ষ্যে ‘ব্যাপকভিত্তিক ৩৬০ ডিগ্রী দৃষ্টিভঙ্গি’কে সমর্থন জানিয়ে অভিবাসন ব্যবস্থাপনার পরিচালনা পদ্ধতির উন্নয়নে আরো বৈশ্বিক সহযোগিতার ওপর জোর দেন বাংলাদেশের স্থায়ী প্রতিনিধি। অভিবাসনের উন্নয়ন সম্ভাবনাগুলো কাজে লাগানোর আহ্বানও জানান তিনি। এজেন্ডা ২০৩০ এর সাথে অভিবাসন সংক্রান্ত বিষয়গুলো সন্নিবেশিত করার জন্য জাতীয় সরকারসমূহ যে সকল প্রচেষ্টা গ্রহণ করেছে তা এগিয়ে নিতে জাতিসংঘসহ অন্যান্য আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলোকে তিনি অনুরোধ জানান। অভিবাসী কর্মীদের দক্ষতায়ন, পুনঃদক্ষতায়ন ও উন্নতদক্ষতায়নের জন্য আরো বেশি বৈশ্বিক অংশীদারিত্ব এবং কোভিড পরবর্তী চাকুরি বাজারে ‘নতুন স্বাভাবিক’ পরিস্থিতির সাথে খাপ খাওয়াতে তাদের প্রয়োজনীয় তহবিল সহায়তা প্রদানের ওপর জোর দেন বাংলাদেশের স্থায়ী প্রতিনিধি।

অনুষ্ঠানে উদ্বোধনী বক্তব্য রাখেন জাতিসংঘ মহাসচিব ও আন্তর্জাতিক অভিবাসী সংস্থার মহাপরিচালক। এরপর অনুষ্ঠিত হয় উচ্চ পর্যায়ের প্যানেল আলোচনা। ইভেন্টটিতে পতুর্গাল, গিনি বিসাও ও এলসালভেদর এর পররাষ্ট্র মন্ত্রী এবং কানাডা, মেক্সিকো, মরক্কো, ঘানা ও নেপাল এর স্থায়ী প্রতিনিধিসহ জাতিসংঘ সদস্য রাষ্ট্র ও সংশ্লিষ্ট সংস্থার উল্লেখযোগ্য সংখ্যক প্রতিনিধি অংশগ্রহণ করেন।

Social Medias

More News on this Topic
01779911004